November 30, 2022, 5:37 pm

কেশবপুরে বন্ধু’র জন্মদিনে মদ্যপানে ২ যুবকের মৃত্যু: জন্মদিন পালনকারী বন্ধু হাসপাতালে ভর্তি

শামীম আখতার, বিভাগীয় প্রধান (খুলনা) যশোরের কেশবপুরে বন্ধু’র জন্মদিন পালন করতে এসে মদ্যপানে ইন্দ্রজিৎ বাইন (২০) ও রনি বিশ্বাস (১৮) নামের দুই যুবকের মৃত্যু হয়েছে। অপর জন্মদিন পালনকারী বন্ধু কৃষ্ণ সরকার (১৭) মারাত্মক অসুস্থ অবস্থায় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার কালিচরণপুর গ্রামে। এ ঘটনায় কেশবপুর থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন শেষে নিহত ইন্দ্রজিৎ এর মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করেছেন।
থানা ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, গত ২৯ অক্টোবর (শনিবার) উপজেলার কালিচরণপুর গ্রামের প্রতাপ সরকারের ছেলে কৃষ্ণ সরকার (১৭) এর জন্মদিন ছিলো। তার জন্মদিন পালনের জন্য দুই বন্ধু একই গ্রামের রনজিত বাইনের ছেলে ইন্দ্রজিৎ বাইন (২০) ও মনিরামপুর উপজেলার সুজাতপুর গ্রামের মিহির বিশ্বাসের ছেলে রনি বিশ্বাস (১৮) বাড়িতে আসেন। কৃষ্ণ সরকারের জন্মদিন পালন উপলক্ষে বন্ধুরা সবাই আনন্দ উল্লাসে মেতে উঠতে কাটাখালি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মাঠে বসে মদপান করে। মদপান করা শেষে সকলেই যার যার বাড়ি ফিরে যায়। মদপানের কারণে বাড়ি ফিরে সবাই অসুস্থ হয়ে পড়ে। এমতাবস্থায় ইন্দ্রজিৎ বাইনকে স্থানীয় পল্লী চিকিৎসক দ্বারা চিকিৎসা করেন পরিবারের লোকজন। পরবর্তীতে ৩১ অক্টোবর (সোমবার) বিকেলে ইন্দ্রজিৎ এর অবস্থা আশঙ্কা জনক হলে চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথিমধ্যে নওয়াপাড়ার পায়রা নামকস্থানে পৌঁছালে মারা যায়। মনিরামপুর উপজেলার রনি বিশ্বাস গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়লে পরিবারের লোকজন চিকিৎসার জন্য খুলনা গাজী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে তাকে ভর্তি করেন। সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় ৩১ অক্টোবর (সোমবার) দুপুরে রনি বিশ্বাস মারা গেছে। রনি বিশ্বাসের মৃত্যুর বিষয়টি মণিরামপুর উপজেলার কুলটিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শেখর চন্দ্র রায় নিশ্চিত করেন এবং অসুস্থ কৃষ্ণ সরকারকে (১৭) পরিবারের লোকজন যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করেন। বর্তমানে সেখানেই কৃষ্ণ চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এব্যাপারে কেশবপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ বোরহান উদ্দীন বলেন, মদ্যপানে মৃত্যুর ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে। নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য যশোর জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর


ফেসবুকে আমরা