November 30, 2022, 4:06 pm

নাসিক ১ নং ওয়ার্ডে মসজিদ কমিটি গঠন নিয়ে উত্তেজনা ভাতিজায় চায় ধরে রাখতে চাচায় চায় হরণ করতে

সিদ্ধিরগঞ্জ (২২’জুলাই ২২’ইং শুক্রবার) ঃ নাসিক ১ নং ওয়ার্ড নতুন মহল্লা এলাকায় মসজিদের কমিটি গঠন নিয়ে সাবেক ও বর্তমান কাউন্সিলরের মধ্যে বিরোধ দেখা দিয়েছে। গতকাল শুক্রবার জুম্মার নামাজের আগে দু’পক্ষের মধ্যে বাকবিতন্ডার ঘটনা ঘটে। ভাতিজায় চায় কর্তৃত্ব ধরে রাখতে, চাচায় চায় হরণ করতে। এনিয়ে বিরাজ করছে চরম উত্তেজনা। সংঘর্ষের আশঙ্কা করছেন স্থানীয়রা।
জানা গেছে, পাইনাদী নতুন মহল্লা এলাকার বায়তুন আমান জামে মসজিদ কমিটির সভাপতি ছিলেন সাবেক কাউন্সিলর ওমর ফারুকের পিতা ইউনুস মিয়া। গত কয়েক সপ্তাহ ধরে ফারুক চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন আবার তার পিতাকে সভাপতি করে কমিটি গঠন করতে। কিন্তু বাধা হয়ে দাঁিড়য়েছে বর্তমান কাউন্সিলর আনোয়ার ইসলাম। তিনি তার অনুগত লোকদের নিয়ে কমিটি করতে চান। এনিয়ে চাচা ভাতিজার মধ্যে দেখা দেয় বিরোধ। কমিটি গঠন বিষয়ে আলোচনা করার সময় শুক্রবার জুম্মার নামাজের আগে সাবেক কাউন্সিলর ফারুক ও তার চাচা বর্তমান কাউন্সিলর অনোয়ার ইসলামের সমর্তক মুসল্লিদের মধ্যে তর্কবিতর্ক ও চরম হড্ডগুল সৃষ্টি হয়। এতে জামায়াত অনুষ্ঠিত হয় প্রায় এক ঘন্টা দেরিতে। ফলে ক্ষুব্ধ হয়ে উঠেন সাধারণ মুসল্লিরা।
নাম প্রকাশ্যে অনিচ্ছুক একজন মুসল্লি জানান, ফারুক তার পিতাকে সভাপতি করে বিগত ৫’বছর মসজিদে কর্তৃত্ব করেছে। আয় ব্যয় নিয়েও করেছে নয় ছয়। তবে আনোয়ার ইসলামও লোক সুবিধার না। তার অনুগত লোকদের নিয়ে কমিটি করে মসজিদের কর্তৃত্ব হাতে নিতে মরিয়া হয়ে উঠেছে। আনোয়ারের হাতে কর্তৃত্ব গেলে মাতবর বনে যাবেন তারা ছেলে। ফলে নয় ছয় হবে আয় ব্যয় নিয়ে।
এবিষয়ে সাবেক কাউন্সিলর ওমর ফারুক বলেন, দীর্ঘদিন ধরেই আমার পিতা এ মসজিদ কমিটির সভাপতি। বর্তমানেও তিনি আছেন। আনোয়ার চাচা একটি পাল্টা কমিটি ঘোষনা করতে চেয়েছিল। মুসল্লিরা তা মেনে নেয়নি।
নাসিক ১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আনোয়ার ইসলাম বলেন, আরো বেলা গড়াক। ভাল করে জাইনা লই। পরে সব কইব।#####

এই বিভাগের আরও খবর


ফেসবুকে আমরা