August 2, 2021, 10:41 pm

মতলবে বৃদ্ধার বেতনের টাকা আত্মসাত ও মারধরের তথ্য যানায় সংবাদকর্মীকে হুমকি

মতলব প্রতিনিধিঃচাঁদপুর মতলব পৌরসভার দগরপুর এলাকায় গরুর ফার্মের এক বৃদ্ধ শ্রমিকের বেতনের টাকা আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে। বিষয়টি নিয়ে সংবাদকর্মীরা সংবাদ সংগ্রহ করলে মুঠোফোনে হুমকি দেয় ফার্মের মালিক পক্ষ।

গত (২৪নভেম্বর) জানা যায়, মতলব পৌরসভায় ২নং ওয়ার্ডে দগরপুর গ্রামের আবদুল মান্নান বকাউলের বড় ছেলে আবদুল মামুন বকাউল একটি গরু ফার্ম প্রতিষ্ঠা করেন। আর এই ফার্মে মাসিক ১৫ হাজার টাকা বেতন শ্রমিক হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয় সিরাজগঞ্জ জেলার শাহদাতপুর উপজেলার কায়েমপুর ইউনিয়নে বিরাংগাও গ্রামের মৃত কালুপুরা মানিক মিয়ার ছোট ছেলে মো:কালাম (৬২) কে। চাকুরির পাঁচ মাসের পূর্ণ হওয়ার কয়েকদিন আগে ওই বৃদ্ধ কে তার পারিশ্রমিকের চার মাসের টাকা দেয় মালিক পক্ষ।
এদিকে মায়ের অসুস্থতার কথা শুনে ওই বৃদ্ধ শ্রমিক ফার্মের মালিক কে জানিয়ে বাড়ির উদ্দেশ্যে রওনা দেওয়ার জন্য চাঁদপুর শহরে যায। ফার্মের শ্রমিক পালিয়ে যাওয়ার আশঙ্কায় মালিকপক্ষ চাঁদপুর থেকে শ্রমিক কালামকে জোরপূর্বক ধরে মতলব ঘোষপাড়া বাসায় নিয়ে যায়। সেখানে ওই বৃদ্ধাকে মারধর করে তার বেতনের সমস্ত টাকা কেড়ে নেয় এবং সাদা কাগজে স্বাক্ষর নেয় ফার্মের মালিকও তার পিতা মান্নান বকাউল।
গত ২৪ নভেম্বর ফার্মের গরুর জন্য ঘাস কাটার সময় মারধর করে বেতনের টাকা মালিকপক্ষ রেখে দিয়েছে, এমন কথা স্থানীয় এক ব্যক্তিদের কাছে জানায় কালাম।
এদিকে বৃদ্ধ শ্রমিকের বেতনের টাকা মালিকপক্ষ জোরপূর্বক রেখে দিয়ে কাজ করাচ্ছেন এমন তথ্যের ভিত্তিতে সংবাদকর্মী তথ্য সংগ্রহে যান। তথ্য সংগ্রহের কারণেই ফার্মের মালিকের পিতা মান্নান বকাউল মুঠোফোনে সংবাদকর্মীকে বাড়াবাড়ি না করার জন্য হুমকি দেন। সেই সাথে ফার্মের গরুর কিছু হলে তার বিরুদ্ধে মামলা করবেন বলে হুমকিও দেন।

বৃদ্ধ শ্রমিককে মারধর করে বেতনের টাকা রেখে দেওয়ার বিষয়টি স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা ফার্মের মালিক মামুনকে জিজ্ঞাসা করলে সে ওই বৃদ্ধাকে তিনটি চড় থাপ্পড় মেরেছেন তাহার দুই গালের মধ্যে বলে স্বীকার করেন।
বৃদ্ধা তার বেতনের টাকা

ফেরত চান এবং অসুস্থ মাকে দেখতে বাড়ি যেতে স্থানীয় প্রশাসনের সুদৃষ্টি কামনা করেন।

এই বিভাগের আরও খবর


ফেসবুকে আমরা